পূর্বধলায় জমিজমা সংক্রান্ত পারিবারিক কলহে মেডিকেল ছাত্রীর উপর হামলা, থানায় মামলা

প্রকাশিত: ৭:৩৭ পূর্বাহ্ণ, এপ্রিল ২০, ২০২১

নেত্রকোণার পূর্বধলায় জমিজমা সংক্রান্ত পারিবারিক কলহের জের ধরে সাদিয়া শারমিন (২০) নামের এক মেডিকেল ছাত্রীর উপর হামলার অভিযোগ উঠছে বিবাদী আপন চাচা আব্দুল আজিজ খান, চাচাত ভাই জুয়েল খান, সুহেল খান ও খান মোহাম্মদের উপর। সাদিয়া উপজেলার ধলামূলগাঁও ইউনিয়নের লাউয়ারী গ্রামের মোঃ কামাল খানের মেয়ে এবং ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজের ২য় বর্ষের ছাত্রী।

অভিযোগ ও পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, সাদিয়ার বাবা ও চাচা মিলে ২০১৫ সালে নেত্রকোণার ত্রিমোহনী বাজারে একটি অটো রাইস মিল ক্রয় করেন। রাইস মিলের জায়গা-জমি নিয়ে পূর্ব শত্রুতা ও পারিবারিক কলহের জের ধরে গত ১৪ এপ্রিল রাতে সাদিয়াসহ তার পরিবারের উপর হামলা করেন বিবাদীরা। পরে গুরুতর আহত অবস্থায় ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। গত ১৬ এপ্রিল কামাল হোসেন বাদী হয়ে ৪৪৭/৩২৩/৩২৫/৩২৬/৩০৭/৫০৬/১১৪ ধারায় পূর্বধলা থানায় একটি মামলা (মামলা নং ১৯) দায়ের করেন।

পূর্বধলা থানার ওসি মুহাম্মদ শিবিরুল ইসলাম জানান, এ বিষয়ে অভিযোগের ভিত্তিতে পূর্বধলা থানায় একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে। তদন্ত সাপেক্ষে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।

আহত সাদিয়ার ভাই রাতুন খান লিমন জানান, আমার চাচা ও চাচাত ভাইয়েরা মিলে আমাদের উপর হামলা করেছেন। লক ডাউনে আমার বোন বাড়িতে আসলে তাকে মাথায় আঘাত করে জখম করেছে। মামলা তুলে নিতে নানা ভাবে ভয়ভীতি ও হুমকি দিয়ে যাচ্ছেন। এ বিষয়ে বিবাদীদের সাথে যোগাযোগ করে পাওয়া যায়নি।